ঢাকা | মে ২১, ২০২৪ - ৩:২৩ অপরাহ্ন

শিরোনাম

নোয়াখালীতে মুক্তিযোদ্ধা পরিবারের বসতঘরে হামলা ও ভাঙচুরের অভিযোগ

  • আপডেট: Thursday, February 1, 2024 - 6:42 am

নোয়াখালী প্রতিনিধি :

নোয়াখালী সদর উপজেলায় বেদেপল্লীতে জায়গা-জমি সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে এক বীর মুক্তিযোদ্ধা পরিবারের বসতঘরে হামলা ও ভাঙচুরের অভিযোগ ওঠেছে।
মঙ্গলবার (৩০ জানুয়ারি) দিবাগত রাতে উপজেলার এওজবালিয়া ইউনিয়নের পূর্ব এওজবালিয়া গ্রামের বেদেপল্লীর বীর মুক্তিযোদ্ধা মোহাম্মদ আলীর ছেলে মিজান মিয়ার বসতঘরে এই হামলা ও ভাঙচুরের ঘটনা ঘটে। ভুক্তভোগী ও অভিযুক্তরা উভয়ই বেদে সম্প্রদায়ের লোক।
ভুক্তভোগী মিজান মিয়া জানান, ৮ শতাংশ জমি বেচাকেনাকে কেন্দ্র করে স্থানীয় বেদে সরদার মুকবুল হোসেন, মো.  সুমন, মো. মজিদ, মো. শরীফসহ কয়েকজন চাঁদাবাদ তার কাছে চাঁদা দাবি করেন। ওই ঘটনায় তিনি সুধারাম মডেল থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করলে মঙ্গলবার সন্ধ্যায় অভিযুক্তরা স্থানীয় একটি চায়ের দোকানে তাকে প্রাণনাশের হুমকি দেয়। পরে রাত পৌনে একটার দিকে তার বসতঘরে হামলা ও ভাঙচুর চালায় সন্ত্রাসীরা। এসময় সন্ত্রাসীরা তাকে ঘর থেকে বের হয়ে আসতে উচ্চবাক্য করে এবং প্রাণে হত্যার চেষ্টা চালায়। পরে আশপাশের লোকজন এগিয়ে আসলে সন্ত্রাসীরা পালিয়ে যায়।
অভিযোগ বিসয়টি অস্বীকার করে অভিযুক্ত মুকবুল সরদার ও সুমন বলেন, মিজান মিয়া স্থানীয় একটি জমি ক্রয়ের নামে জোরপূর্বক জমি দখলের চেষ্টা করে। এতে আমরা বাধা প্রদান করলে সে আমাদের বিরুদ্ধে মিথ্যা রটায়। পরবর্তীতে গতরাতে আমাদেরকে ফাঁসাতে তারা নিজেরা নিজেদের ঘর ভাঙচুরের নাটক সাজিয়ে আমাদের বিরুদ্ধে মামলায় লিপ্ত হন।
সুধারাম মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মীর জাহেদুল হক রনি জানান, খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছে। ঘটনার তদন্ত শেষে প্রয়োজনীয় আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।
নোয়াখালী।